আমাদের পরবর্তী লাইভ কোর্স জানুয়ারী ২০২০ থেকে শুরু হবে। 

Web Development Online Course | ওয়েব ডেভেলপমেন্ট কোর্স | Class- 03 :: B-N191-2

Web Development Online Course | ওয়েব ডেভেলপমেন্ট কোর্স | Class- 03 :: B-N191-2

উক্ত ক্লাসে যা যা আলোচনা করা হয়েছে:
আলোচিত বিষয় সমূহঃ

-Introduction to CSS(সিএসএসের পরিচিতি)
-Declaration(ডিক্লারেশন)
-How to use background, color and other properties
(পটভূমি, রঙ এবং অন্যান্য বৈশিষ্ট্যগুলি কীভাবে ব্যবহার করবেন)
-Padding vs Margin(প্যাডিং বনাম মার্জিন)

Introduction to CSS(সিএসএসের পরিচিতি)

সিএসএস (CSS: Cascade StyleSheet) হলো ওয়েব ডিযাইনের একটি ভাষা, যা দিয়ে ওয়েবসাইটের HTML দিয়ে লেখা কাঠামোগুলোকে সাজানো হয়। ক্যাসক্যাড কথাটার মানে হলো ‘জলপ্রপাতের মতো নেমে আসা’, তবে ইলেকট্রনিক্সের পরিভাষায় এর অর্থটা এরকম: A series of components or networks, the output of each of which serves as the input for the next — বাংলা করলে দাঁড়ায়: ক্যাসক্যাড হলো এমন ধারাবাহিক কিছু, যার একটি দিয়ে অন্যটির সূত্রপাত হয়। সোজা বাংলায় সিএসএসের কোডগুলো ঝরণার মতোই ধাপে ধাপে সাজানো, যেখানে পরের কোডটা, আগের কোডের চেয়ে প্রাধান্য পায়।

রহিম { যাও: ওদিকে;}

রহিম { যাও: এদিকে;}

আগের কমান্ডে রহিমকে বললাম, তুমি ওদিকে যাও, পরের কমান্ডে বললাম এদিকে এসো – রহিম তবে কোনটা শুনবে? সিএসএস যেহেতু ক্যাসক্যাড আকারে লিখিত হলো, ধাপে ধাপে, এবং পরের ধাপটি প্রাধান্য পায়, তাই রহিম পরেরটা শুনবে, অর্থাৎ এদিকে আসবে।

সিএসএসের ধরণ: সিএসএস-এর আসলে কোনো প্রকারভেদ নেই, সব সিএসএস-ই একইরকম। কিন্তু কিভাবে সেটা ব্যবহার করা হচ্ছে, তার হিসাবে সিএসএস তিন রকম:

ইনলাইন সিএসএস বা লাইনের মধ্যবর্তী সিএসএস (Inline CSS)
ইন্টারনাল সিএসএস বা অভ্যন্তরীণ সিএসএস (Internal CSS)
এক্সটার্নাল সিএসএস বা বহিঃস্থ সিএসএস (External CSS)
ইনলাইন সিএসএস লেখা হয় HTML এলিমেন্ট বা ট্যাগগুলোর ভিতরে ভিতরে। এক্ষেত্রে HTML এলিমেন্টের মধ্যে লিখতে হয় style আর সিএসএস কোডগুলো লিখতে হয় সমান চিহ্নের (=) পরে ডাবল কোটের (“”) ভিতরে। এভাবে লেখার কারণটা সিএসএসের মধ্যে নয়, বরং HTML-এর মধ্যে, কারণ HTML-এ কোনো প্রোপার্টি লেখার পদ্ধতি হলো এরকম, সমান চিহ্নের পরে ডাবল কোটের ভিতরে লিখতে হয়। উদাহরণ দেখা যাক:

Declaration(ডিক্লারেশন)

এইচটিএমএলের গঠনমূলক বছরগুলিতে, ওয়েব মানগুলির বিষয়ে এখনও একমত হয়নি। ব্রাউজার বিক্রেতারা যেভাবে চান নতুন বৈশিষ্ট্য তৈরি করবে। প্রতিযোগী ব্রাউজারগুলির জন্য সামান্য উদ্বেগ ছিল। ফলাফলটি ছিল যে ওয়েব বিকাশকারীদের তাদের সাইটগুলি

বিকাশের জন্য একটি ব্রাউজার বেছে নিতে হয়েছিল। এর অর্থ হ’ল সাইটগুলি অসমর্থিত ব্রাউজারগুলিতে ভাল রেন্ডার করতে পারে না। এই পরিস্থিতি অব্যাহত রাখতে পারেনি।

How to use background, color and other properties
(পটভূমি, রঙ এবং অন্যান্য বৈশিষ্ট্যগুলি কীভাবে ব্যবহার করবেন)

যখন একটি ব্রাউজার একটি ডকুমেন্ট প্রদর্শন করে, এটি অবশ্যই ডকুমেন্ট এর উপকরনের সাথে এর স্টাইল তথ্য এর সমন্বয় ঘটায়।এটি ডকুমেন্ট টি কে দুই ধাপে প্রসেস করে থাকেঃ

ব্রাউজার টি মার্ক আপ লেঙ্গুয়েজ এবং সিএসেস একটি কাঠামোতে পরিবর্তন করে যেটির নাম DOM (ডকুমেন্ট অবজেক্ট মডেল). The DOM কম্পিউটার এর মেমরি তে ডকুমেন্ট কে উপস্থাপন করে.এটি ডকুমেন্ট এর উপকরনের সাথে এর স্টাইল এর সমন্বয় ঘটায়।
ব্রাউজার টি DOM এর কন্টেন্ট গুলো কে তুলে ধরে।
একটি মার্ক আপ ল্যাঙ্গুয়েজ elementsব্যাবহার করে ডকুমেন্ট এর গঠন ব্যাখ্যা দেয়ার জন্য। ট্যাগ ব্যাবহার করে আপনি একটি elementকে মার্ক করতে পারেন, এর মধ্যে আছে স্ট্রিং যেটা শুরু হয় ‘<‘ দিয়ে এবং শেষ হয় ‘<‘ দিয়ে। বেশির ভাগ এলিমেন্ট এর জোড়া ট্যাগ আছে।একটি স্টার্ট ট্যাগ আর এন্ড ট্যাগ। স্টার্ট এর ক্ষেত্রে, elementএর নাম, ‘< >’ এর ভিতরে ।এন্ড ট্যাগ এর ক্ষেত্রে element এর নাম এর আগে ,'<‘ এর পরে ‘/’ বসাতে হবে।

মার্ক আপ ল্যাঙ্গুয়েজ এর উপর ভিত্তি করে, কিছু element এর শুধু মাত্র স্টার্ট ট্যাগ অথবা শুধুমাত্র সিঙ্গেল ট্যাগ থাকবে যেখানে ‘/’ নাম এর পরে আসে।
একটি element একটি পাত্র হতে পারে , স্টার্ট ট্যাগ এবং এন্ড ট্যাগ এর মাঝে অন্যান্য উপকরন নিএ।
একটি DOM এর গাছ এর মত কাঠামো থাকে. মার্ক আপ ল্যাঙ্গুয়েজ এ প্রতিটি element and টেক্সট এর রান একটি node হিসেবে কাজ করে এই গাছ কাঠামোতে. DOM nodes গুলো পাত্র নয়। বরং, এগুলোকে শিশু node এর অভিভাবক ধরা যায়।

Padding vs Margin(প্যাডিং বনাম মার্জিন)

প্যাডিং হচ্ছে একটা এলিমেন্টের কনটেন্ট এবং বর্ডারের দুরত্ব আর মার্জিন হচ্ছে এলিমেন্টের চারিপাশ থেকে শুরু হয় (বর্ডার থেকে)। একটা এলিমেন্ট থকে আরেকটা এলিমেন্ট দুরে সরানোর জন্য মার্জিন সাধারনত ব্যবহার হয়। অার প্যাডিং দিয়ে একটা এলিমেন্টের কনটেন্ট এবং বর্ডারের মধ্যে দুরত্ব তৈরী করা হয়।
প্যাডিং এবং মার্জিন এর মধ্যে পার্থক্য হলো,,,,প্যাডিং ইলিমেন্ট এর ভিতর ফাঁকা জায়গা তৈরি করে আর মার্জিন বাইরে তৈরি করে।

🗓 আরো বিস্তারিত: https://eshikhon.com/pro-offer

আমাদের পরবর্তী (আপকামিং) ব্যাচসমূহ: https://eshikhon.com/batch
🏢হেড অফিস: 23/3, Behind Sonali Bank, Zigatola, Dhanmondi, Dhaka-1209

সারাদেশে সেন্টারসমূহ (১০০+ টি): https://eshikhon.com/agents/

☎হেল্পলাইন: 09639 399399, 01948858258, 01842858258, 01705776939

আরো পড়ুন:

   
   

0 responses on "Web Development Online Course | ওয়েব ডেভেলপমেন্ট কোর্স | Class- 03 :: B-N191-2"

Leave a Message

Your email address will not be published.

© eShikhon.com 2015-2019. All Right Reserved