আবারো শুরু হয়েছে দেশব্যাপী বিনামূল্যে ফ্রিল্যান্সিং কোর্স প্রশিক্ষণ, মাত্র ৫৪০ টাকা রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে ১৬টি কোর্সের যেকোনটিতে অংশ নেওয়ার সুযোগ। বিস্তারিত: Pro-offer আমাদের প্রথম দিকের নাম্বারগুলোর বিকাশ লিমিট শেষ, তাই টাকা পাঠানোর ক্ষেত্রে শেষের নাম্বারগুলোতে পাঠাবেন। কিভাবে লাইভ ক্লাসে জয়েন করবেন, দেখুন এখানে

দশ হাজার শিক্ষার্থীর ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করেছে ইশিখন

সারাদেশ থেকে অনলাইনে ১০,০০০ শিক্ষার্থীকে সফলভাবে ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করেছে দেশের জনপ্রিয় অনলাইন পোর্টাল ইশিখন.কম।  বিগত দেড় বছরে বিনামুল্যে ১৬টি কোর্সে সর্বমোট ১০,০০০ জন শিক্ষার্থী এ প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছেন।  এছাড়াও যাদের ইন্টারনেট সংযোগ নেই তারা লাইভ ক্লাসের ডিভিডি সংগ্রহ করেও কোর্সসমূহ শিখছেন।  এ পর্যন্ত প্রায় ৫,০০০ (পাঁচ হাজার) ডিভিডি ইশিখন থেকে কুরিয়ারের মাধ্যমে কিংবা অফিসে এসে শিক্ষার্থীরা সংগ্রহ করেছেন।

বেকার সমস্যা দূরীকরণে সরকারের পাশাপাশি দীর্ঘদিন যাবৎ অনলাইনে শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ প্রদান করে আসছে এ প্রতিষ্ঠানটি।এতে ইশিখন.কম ওয়েবসাইটের মাধ্যমে দেশের যেকোন প্রান্ত থেকে শিক্ষার্থীরা ঘরে বসেই লাইভ ক্লাস করার সুযোগ পান। ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে জনপ্রিয় ১৬টি কোর্স এর যেকোন এক বা একাধিক কোর্স করার সুযোগ পান শিক্ষার্থীরা। এর মধ্যে শীর্ষ ৫টি কোর্স যথা ওয়েব ডেভেলপমেন্ট (২০০০), ওয়েব ডিজাইন (১৪০০), গ্রাফিক্স ডিজাইন(১৫০০), এন্ড্রয়েড এপ ডেভেলপমেন্ট(১৫০০), এফিলিয়েট মার্কেটিং (১২০০) এর উপর প্রায় দুই-তৃতীয়াংশ শিক্ষার্থী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন।

এদের মধ্যে বেশিরভাগ বর্তমানে ফাইভার, আপওয়ার্কসহ বিভিন্ন ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসগুলো আয় করে স্বাবলম্বী হয়েছেন। আবার অনেকেই কোর্স শেষে বিভিন্ন আইটি সেক্টরে বর্তমানে কর্মরত আছেন। ইশিখন.কম এর ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর শিক্ষার্থী মো: জিয়াউর রাহমান জানান, “আমি এই কোর্সের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত অনেক গুরুত্বপূর্ণ টেকনিকগুলো শিখলাম। একদম হাতে কলমে। এখানে আমি যে প্রশিক্ষণ পেলাম তিনি সত্যিই অসাধারণ এবং অনেক হেল্পফুল।  ইশিখন এবং রায়হান ইসলাম স্যারকে বিশেষভাবে ধন্যবাদ। ইশিখন থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে বর্তমানে অনলাইনে কাজ করা তানভীর জানান, “ আমি আগে থেকেই অনলাইনে কাজ করে আয় করার জন্য চেষ্টা করতাম কিন্তু সফলতা পাচ্ছিলাম না। এরপর ইশিখন থেকে কোর্স করার সিদ্ধান্ত নিই। শিক্ষকের মাধ্যমে নিজের ভুলগুলো জানতে পারি এবং আমি গ্রাফিক্স ডিজাইন ইশিখন থেকে আরো ভালভাবে শিখি বর্তমানে আমি চাকরি ছেড়ে ফুল টাইম ফ্রিল্যান্সিং করছি। এন্ড্রয়েড এপ ডেভেলপমেন্ট এর আরেক শিক্ষার্থী এ.এস.এম কিবরিয়া জানান, “প্রথমে আমি ধন্যবাদ দেই ইশিখনকে এবং আমাদের শ্রদ্ধেয় শিক্ষক মাহবুব মাহী স্যারকে। প্রোগ্রামিংকে ভয় পেতাম, স্যার অল্প সময়ে অনেক এন্ড্রয়েড এপ ডেভেলপমেন্ট অনেক জটিল কিছু সহজে বুঝিয়ে দিয়েছেন। এটা নতুনদের জন্যও উপকারী। অন্যদিকে ইশিখন বাংলাদেশের ইলার্নিং খাতে নতুন একটি মোড় নিয়ে এসেছে। আমরা যারা গ্রামে থাকি, ঢাকায় এসে ভাল শিক্ষকের সানিধ্যে কোর্স করে সফল হওয়া সম্ভব হয় না, ইশিখন তাদের সুযোগ করে দিয়েছে।  সবাইকে ধন্যবাদ, ইশিখনের সাফল্য কামনা করছি।”

গত বছর ইশিখন.কম দেশব্যাপী শিক্ষিত বেকার তরুণদের ফ্রিল্যান্সিং এর উদ্যোগ নেয়, ১৫,০০০ থেকে ২০,০০০ টাকা মূল্যের এই কোর্সসমূহ শুধুমাত্র ৫৪০ টাকা রেজিস্ট্রেশন ফি এর মাধ্যমে করতে পারবেন। ইন্টারনেট কানেকশন এবং কম্পিউটার থাকলে ঘরে বসেই দেশের যেকোন প্রান্ত থেকে এইচএসসি পাশ যেকেউ করার সুযোগ পাচ্ছেন। শিক্ষক যখন ক্লাস নিবে তখন শিক্ষকের কম্পিউটার মনিটর শিক্ষার্থীদের কম্পিউটারে দেখাবে, সাথে সাথে মাইক্রোফোনে কিংবা চ্যাটের মাধ্যমে সরাসরি যেকোন প্রশ্ন করা যাবে। প্রতিটি ক্লাস শেষে রয়েছে মডেল টেস্ট, এসাইনমেন্ট জমা এবং কোন ক্লাস মিস করলে উক্ত ক্লাসের ভিডিও রেকর্ডও পরের দিন ইশিখন সাইটে পাওয়া যায়।

বিভিন্ন দেশের পাশাপাশি বাংলাদেশেও বর্তমানে ইলার্নিং সেক্টর তথা অনলাইন প্রশিক্ষণ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। দেশের স্বনামধন্য প্রতিটি প্রতিষ্ঠানে এখন ইশিখনের মত অনলাইন প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন।

   
   

0 responses on "দশ হাজার শিক্ষার্থীর ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করেছে ইশিখন"

Leave a Message

Your email address will not be published.